মনিটরিং বিহীন ঋণঃ শিয়াল ও কুমির ছানার গল্প

4.8 6 votes
Article Rating

এক কুমিরের একবার শখ হলো যে সে তার বাচ্চাদের শিক্ষিত বানাবে। এখন শিক্ষিত যে বানাবে সে শিক্ষক পাবে কোথায়। চিন্তা করতে করতে তার মনে পরল শিয়ালের কথা। শিয়ালকে তো প্রাণী জগতের সবাই পণ্ডিত বলে থাকে। সেজন্য সে ঠিক করল যে শিয়ালের কাছেই তার ছানাদের পাঠাবে। সে পাঠাল তার ৮ ছানাকে। এদিকে নাদুস নুদুস ছানা দেখে তো শিয়ালের মুখে লোল পড়ার অবস্থা। তো সে প্রতিদিন একটা করে ছানা খেতে থাকল। আর কুমির তার বাচ্চাদের মাঝে মাঝে দেখতে চাইলে সে ঘুরিয়ে ফিরিয়ে একটা বাচ্চাকে বারবার দেখিয়ে বুঝ দিত যে ৮ টি বাচ্চাই আছে। এদিকে কুমিরও নিশ্চিতভাবে বসে থাকে আর আরেক দিয়ে তার একটা একটা করে বাচ্চা সাবাড় হতে থাকে।

এখন এই রুপক গল্প টাকে আমরা যদি ক্ষুদ্র ঋণের প্রেক্ষিতে দেখতে চাই, তাহলে কুমির হলো প্রতিষ্ঠান, শিয়াল হলো সদস্য, বাচ্চা হলো টাকা আর বাচ্চাকে শিক্ষিত করা হচ্ছে সেই প্রকল্প যার জন্য আপনি ঐ সদস্যকে টাকা দিয়েছেন।

এখন আসুন আমরা দেখি যে আমরা মূলত ঋণ টা কেন দিই। সেটা কি শুধুমাত্র আমাদের ঋণস্থিতি বা Loan Outstanding বাড়ানোর জন্য নাকি ঐ সদস্য এর প্রকৃত উন্নয়নের জন্য যাতে করে সে তার ঐ প্রকল্পে উন্নয়নের মাধ্যমে নিজের ও তার পরিবারের উন্নয়ন সাধনের পাশাপাশি  ঐ প্রকল্পের জন্য পরবর্তীতে আরও বেশি ঋণ নিতে পারে এবং এতে করে ঐ সংস্থার ঋণ স্থিতি আরও বৃদ্ধি পায় তার জন্য। এখন যদি সংস্থা ভাসা ভাসা বা সঠিক ভাবে চেক না করে একবার ঋণ দিয়ে দেয় এবং পরবর্তীতে কুমিরের মত করে মনিটরিং করে তাতে একদিকে ঐ লোকের প্রকৃত উন্নয়ন তো হবেই না বরং সে শিয়ালের মত করে সব টাকা খেয়ে ফেলবে। তখন না হবে কুমিরের ছানা শিক্ষিত অর্থাৎ না হবে প্রকল্পের কোন সঠিক উন্নয়নের মাধ্যমে সদস্যর উন্নতি অপরদিকে না থাকবে কুমিরের বাচ্চা অর্থাৎ টাকা টা পুরো জ্বলে যাবে। সেই টাকার কোন Productivity থাকবে না।

একটি মানুষের আর্থিক উন্নয়নের যে মূলমন্ত্রের জোরে এই সকল ক্ষুদ্র ঋণ সংস্থা ঋণ দিয়ে থাকে সঠিক মনিটরিঙের অভাবে সেটি বরং হয়ে যাচ্ছে বোঝার ন্যায়। এভাবে ঋণ দেয়ার পর ঠিক মত ঋণ প্রকল্প মনিটরিং হয় না বলেই একসময় এই ঋণের টাকা গলার কাটার মত বেজে থাকে। না পারে উগরাতে না পারে গিলতে। অপরদিকে যে কর্মী ঋণ দেয় সে তো পাগলের মত টাকা আনার জন্য ব্যস্ত থাকে। এভাবে এক দিন দুই দিনের মাথায় শুরু করে খারাপ ব্যবহার। আর ঋণ সংস্থার নাম হয়ে যায় রক্তচোষা। এভাবেই রেপুটেশন নষ্ট হচ্ছে এই সকল ঋণ প্রতিষ্ঠানের।

হ্যাঁ, আপনারা বলতে পারেন ব্যাংক কি এত খোঁজ নিয়ে বা এত মনিটরিং করে ঋণ দেয়? যদি তাই না দেয় তবে আমরা কেন দিব?? ভাই, ব্যাংক তো নিজেকে উন্নয়ন সংগঠন বলে দাবি করে না, কিন্তু ক্ষুদ্র ঋণ প্রদানকারী এই সকল আর্থিক প্রতিষ্ঠান কিন্তু নিজেদের উন্নয়ন সংগঠন বলে কাজ করে এবং তাঁদের মূলমন্ত্র কিন্তু তাঁদের সদস্য দের সকল ধরণের সমন্বিত উন্নয়ন সংগঠিত করা। তাছাড়া ব্যাংক তো মূলত তাদেরকেই ঋণ দেয় যারা আর্থিকভাবে মোটামুটি সচ্ছল বা যারা তার এই ঋণ শোধ করতে পারে বা ঋণের পরিবর্তে কিছু মর্টগেজ রাখতে পারে। কিন্তু ক্ষুদ্র ঋণ প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান সমূহের মূল টার্গেট গ্রুপ কিন্তু ছিল প্রান্তিক জনগোষ্ঠী যারা মূলত ব্যাংক থেকে ঋণ নিতে পারত না বা যাদের মর্টগেজ রাখার মত তেমন কোন সম্পত্তি ছিল না। ক্ষুদ্র ঋণ তো এভাবেই তাদেরকে একটু একটু করে ঋণ প্রদান করে, বিভিন্ন রকম প্রশিক্ষণ দিয়ে এবং ঋণ দিয়ে তাদেরকে ধীরে ধীরে উন্নত অবস্থার দিকে নিয়ে যেতে চেষ্টা করত।

কিন্তু বর্তমানে অনেক ক্ষুদ্র ঋণ প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান তাঁদের এই মূলনীতি থেকে দূরে সরে আসার জন্য আদতে যা ছিল উন্নয়নমুখী প্রতিষ্ঠান এখন হয়ে যাচ্ছে তা মানুষের জন্য গলার কাঁটা। অনেক ক্ষেত্রেই শুধু মনিটরিং এর অভাবের জন্য এই সকল প্রতিষ্ঠান হচ্ছে উন্নয়নের স্থানে অবনতি কারী প্রতিষ্ঠান যা কিন্তু একটি সতর্ক সংকেত।

এখন কিন্তু ব্যাংক ও প্রান্তিক জনগোষ্ঠী কে বিভিন্ন ঋণ দিচ্ছে। অনেক ক্ষুদ্র ঋণ  প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান ও এখন ব্যাংক খুলেছে। কিন্তু এই সকল ক্ষুদ্র ঋণ প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান যদি শুধুমাত্র তাঁদের ব্যবসায়ের খাতিরে ঋণ স্থিতি বাড়ানোর জন্য এভাবে মনিটরিং না করে ঋণ প্রদান করতেই থাকে তবে তা এই সকল প্রতিষ্ঠানের জনপ্রিয়তা ভবিষ্যতে আরও বহুগুনে হ্রাস করতে পারে। এর থেকে উত্তরণের জন্য প্রয়োজন কয়েকটি মূল ঋণ প্রদান প্রকল্পের বিশেষজ্ঞ এর তত্ত্বাবধানের মাধ্যমে ঋণ অনুমোদন ও নিয়মিত বিরতিতে প্রকল্প মনিটরিং এর মাধ্যমে পরবর্তী ঋণের রাস্তা সুগম করা। এতে করে একদিকে যেমন এই সকল ঋণ প্রদানকারী সংস্থার জনপ্রিয়তা ও ব্যবসার ক্ষেত্র বাড়বে অপরদিকে সদস্যদের আর্থিক উন্নতি সম্ভব।

লেখক
মাহ্‌দী যুবায়ের
বিএসএস, এমএসএস, রাষ্ট্রবিজ্ঞান,
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়।
লেকচারার- পৌরনীতি ও সুশাসন- ইউনুছ খান মেমোরিয়াল কলেজ, শামুরবাড়ি,লৌহজং,মুন্সিগঞ্জ।

#মাইক্রোফাইস্যান্স বেসিক বিষয়গুলো জানতে ভিজিট করুন- https://learnmicrofinance.com/microfinance-basics/
#চাকুরী বিজ্ঞপ্তি পেতে ভিজিট করুন- https://learnmicrofinance.com/jobs/
অন্যান্য বিষয় জানতে ভিজিট করুন-
https://learnmicrofinance.com/blog/

4.8 6 votes
Article Rating
Subscribe
Notify of
guest
6 Comments
Newest Oldest
Inline Feedbacks
View all comments
bdhealth
bdhealth
5 months ago

গল্পটি পড়ে ভালোলাগলো । ধন্যবাদ

Davidcar
3 months ago

Hey there, I’m new here, Now i am not sure in case this section could be the right place to write this and even sorry because of this, but We were hoping some one here on would be able to aid me. So i’m wondering if anyone knows just about any trusted resource for online counseling, I’m a university student which need a very good source with regard to such services. Is this company good and anyone worked with them ? ket bilietai prisijungimas ket testai nemokami keliu eismo taisykles baudos Moreover please tell me any good and comprehensive internet… Read more »

VtlkeLHr
3 months ago

FqVdrAITJlgfz

Brus vag
3 months ago

Как правило, задавшись вопросом установки консольные лестницы в доме, владельцы не предполагают, что сама лестница и её ограждение – это два совершенно разных продукта. Хорошо, если одна и та же компания, вроде нас, занимается обустройством объектов под ключ и может предложить изготовить лестницу и металлические ограждения на ней в одном наборе, но на практике это редкость. Поэтому перед любым обладателем лестницы в доме встает вопрос: как сделать нахождение на ней безопасным, Мы гарантируем лучшие условия для сотрудничества благодаря собственному производству, высокому потенциалу конструкторского бюро и ориентированности на долгосрочное взаимовыгодное партнерство. У нас вы можете приобрести не только типовые ограждения для… Read more »

PLdUiKRy
2 months ago

hyYFZKdG

Chiedom
2 months ago

ou acheter du cialis sur le net Exhine buying cialis online reviews expova viagra puede causar infarto